সর্বোচ্চ মামলা দিয়ে পুরস্কারপ্রাপ্ত সার্জেন্ট সোহেল ক্লোজড

সর্বোচ্চ মামলা দিয়ে গত ফেব্রুয়ারী মাসে ডিএমপির ট্রাফিক বিভাগ থেকে পুরস্কার পেয়েছিলেন রামপুরা জোনে দায়িত্ব পালন করা সার্জেন্ট সোহেল রানা। পুরস্কারের লোভে রাস্তায় অনেকটা বেপরোয়া অচরণ শুরু করেছিলেন তিনি। যাকে তাকে যখন তখন হয়রানী ও মামলা দিয়ে মামলার সংখ্যা বাড়ানোই ছিলো তার কাজ। অবশেষে এক পাঠাও চালককে তুচ্ছ ঘটনায় মামলা ও মারধরের ঘটনায় ক্লোজড হয়েছেন নিজেকে ক্ষমতাধর পরিচয় দেওয়া সার্জেন্ট সোহেল রানা।

গতকাল সোমবার এ সংক্রান্ত একটি বিশেষ প্রতিবেদন প্রকাশিত হয় অনলাইন নিউজ পোর্টাল ‘নাগরিক বার্তায়’। প্রতিবেদনটি পাঠকদের মধ্যে ব্যাপক সাড়া ফেলে। বিষয়টি নজর কাড়ে পুলিশ কর্মকর্তাদেরও। প্রাথমিকভাবে দোষী প্রমাণিত হওয়ায় রাতেই ক্লোজড করা হয় সোহেল রানাকে। তাকে রামপুরা জোন থেকে ক্লোজড করে রাজারবাগ পুলিশ লাইনে পাঠানো হয়েছে।

এ বিষয়ে রামপুরা জোনের সহকারী পুলিশ কমিশনার ফাহমিদা আফরিন নাগরিক বার্তাকে জানান, এ ঘটনার পরপরই সার্জেন্ট সোহেল রানকে ক্লোজড করা হয়েছে। তাকে রামপুরা জোন থেকে প্রত্যাহার করে পুলিশ লাইনে পাঠিয়ে দেওয়া হয়েছে। তার বিরুদ্ধে বিভাগীয় ব্যবস্থা নেওয়ার প্রস্তুতি চলছে।

উল্লেখ্য, অভিযুক্ত সোহেল রানা সর্বাধিক মামলা দিয়ে গত ফেব্রুয়ারী মাসে ঢাকা মহানগর পুলিশের রামপুরা ট্রাফিক বিভাগ থেকে মাসিক সভায় পুরষ্কৃত হয়েছিলেন।

নাবা/রাজু/এনএম