সব বিষয়ে মন্তব্য টিআইবির ভাবমূর্তিতে প্রভাব ফেলে: ইকবাল মাহমুদ

দুদক চেয়ারম্যান ইকবাল মাহমুদ। ফাইল ছবি।

দুর্নীতি দমন কমিশনের চেয়ারম্যান ইকবাল মাহমুদ বলেছেন, ট্রান্সপারেন্সি ইন্টারন্যাশনাল বাংলাদেশের (টিআইবি) একটি সুনির্দিষ্ট কর্মপরিধি থাকা উচিত। সব বিষয়ে টিআইবির কথা বলা কোনো কোনো ক্ষেত্রে তাদের ভাবমূর্তির ওপরই নেতিবাচক প্রভাব ফেলে।

টিআইবির চলমান কার্যক্রম মূল্যায়ন ও ভবিষ্যৎ কর্মকৌশল নিরূপণ প্রক্রিয়ার অংশ হিসেবে এই মতবিনিময় হয়েছে বলে দুদকের জনসংযোগ বিভাগ জানিয়েছে। ম্যাথিয়াস বস দুদক চেয়ারম্যানের কাছে টিআইবির কার্যক্রম, সংস্থাটি সম্পর্কে দেশের মানুষের ধারণা, দুদকের সঙ্গে সম্পর্কসহ টিআইবি সম্পর্কে সমালোচনা এবং পরামর্শ জানতে চেয়েছেন।

দুদক চেয়ারম্যান বলেছেন, টিআইবি দুর্নীতি, মেগাপ্রজেক্ট এবং সরকার নিয়ে উচ্চকিত থাকে। কিন্তু মানসম্মত শিক্ষা, জনপ্রশাসনের নিয়োগ বদলি, পদোন্নতিসহ সুশাসনের অন্য যেসব সূচক রয়েছে সেখানে তাদের কার্যক্রম ততটা জোরালো নয়। দুদক চেয়ারম্যান মনে করেন, জনগণের মধ্যে টিআইবি সম্পর্কে ইতিবাচক ভাবমূর্তি থাকলেও এর কিছু সমালোচনাও শোনা যায়। টিআইবি দেশের শাসন প্রক্রিয়া তথা সরকার বা সরকারি সংস্থার যে কোনো ত্রুটি-বিচ্যুতিতেই উচ্চকণ্ঠ থাকে। কেবল ত্রুটি তুলে ধরাই টিআইবির কাজ হতে পারে না বরং এসব সমস্যা সমাধানের পথ বাতলে দেয়ার সুযোগ তাদের রয়েছে। সমস্যা শনাক্ত করার সঙ্গে এর কারণ এবং তা থেকে উত্তরণের উপায় বের করা এ জাতীয় প্রতিষ্ঠানের দায়িত্ব হওয়া উচিত।

টিআইবির গবেষণা প্রসঙ্গে দুদক চেয়ারম্যান বলেন, টিআইবির গবেষণার পদ্ধতি স্বচ্ছ হতে হবে। তারা বেশির ভাগ ক্ষেত্রেই মাধ্যমিক ডেটা ব্যবহার করে, তাদের উচিত প্রাথমিক ডেটা ব্যবহার করা।

নাবা/নিউজ ডেস্ক/এমএমএ/