সচল হয়ে উঠেছে  জাহাজ ভাঙা শিল্প

নতুন বাজেটের আগেই  ঝিমিয়ে থাকা জাহাজ ভাঙ্গা শিল্প সচল হয়ে উঠেছে । শিপইয়ার্ডগুলোয় বেড়ে গেছে পুরনো জাহাজ আমদানি।

চলতি বছরের প্রথম পাঁচ মাসে ১৪৬টি জাহাজ আমদানি হয়েছে, যা আগের বছরের একই সময়ের তুলনায় প্রায় ৭০ শতাংশ বেশি।

সংশ্লিষ্টরা বলছেন, প্রতি টন জাহাজ ভাঙা লোহার জন্য সরকারকে সব মিলিয়ে আড়াই-তিন হাজার টাকা বিভিন্ন ধরনের কর দিতে হয়। আসন্ন বাজেটে এ শিল্পে কর ও ভ্যাট আরো বাড়তে পারে এমন আশঙ্কা থেকেই বাজেট ঘোষণার আগেই ব্যবসায়ীরা স্ক্র্যাপ জাহাজ আমদানি বাড়াচ্ছেন।

এছাড়া দেশের উন্নয়নমূলক বিভিন্ন কাজ চলমান থাকার কারণে ইস্পাতের চাহিদা বৃদ্ধি পেয়েছে। যা  জাহাজ আমদানি বেড়ে যাওয়ার একটি অন্যতম কারণ। ২০১৭ সালের প্রথম পাঁচ মাসে দেশে ইয়ার্ডগুলোয় কাটার জন্য আনা হয়েছিল ৬৯টি জাহাজ।

২০১৮ সালের একই সময়ে আনা হয় ৮৭টি। তবে চলতি বছরের প্রথম পাঁচ মাসে এ সংখ্যা এক লাফে বেড়ে ১৪৬-এ উন্নীত হয়েছে।

নাবা/ ডেস্ক/তানিয়া রাত্রি