শাহরাস্তিতে চেয়ারম্যান প্রার্থীতা ঘোষণা করলেন হুমায়ুন কবির

শাহরাস্তি: আসন্ন শাহরাস্তি উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে আওয়ামীলীগের মনোনয়ন নিয়ে চেয়ারম্যান পদে নির্বাচন করার ঘোষনা দিলেন প্রবিণ রাজনীতিবিদ, উপজেলা আওয়ামীলীগের সাবেক আহবায়ক, জেলা আওয়ামীলীগের সদস্য ও জেলা পরিষদের সদস্য মোঃ হুমায়ূন কবির মজুমদার।

শনিবার (২৬ জানুয়ারি) দুপুরে উয়ারুক বাজারস্থ তার নিজস্ব কার্যালয়ে সাংবাদিকদের সাথে মতবিনিময়ে তিনি এ ঘোষনা দেন। এ সময় তিনি সাংবাদিকদের উদেশ্যে বলেন, আমি সব সময় আওয়ামীলীগের রাজনীতি করে আসছি, জীবনে কখনো এ দলের নীতি আদর্শের বাহিরে যাই নাই। ছাত্র জীবন থেকে রাজনীতির সাথে জড়িত। বেশ কয়েক বছর বৃহত্তর টামটা ইউনিয়নের চেয়ারম্যানের দায়ীত্ব পালন করেছি। উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে দলীয় প্রার্থী হয়েছি। আশা রাখি আসন্ন উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে নৌকা প্রতিক নিয়ে আপনাদের মাঝে হাজির হতে পারবো। তিনি বলেন, দলের প্রতি আমার আস্থা রয়েছে বাংলাদেশ আওয়ামীলীগ আমাকে মূল্যায়ন করবে। আমি দলের একজন হিসেবে আগামী দিনে এগিয়ে যেতে চাই।

এক প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, দল যদি আমাকে মনোনয়ন না দেয় সে ক্ষেত্রে যাকে দিবে আমি তার পক্ষে কাজ করবো। আমার প্রত্যাশা সকল প্রার্থীই তা করা উচিৎ।

এসময় তিনি সাংবাদিকদের উদ্যেশে তার জীবন বৃত্তান্ত তুলে ধরেন। শাহরাস্তি উপজেলার সুরসই মজুমদার মৃত আবদুল মতিন মজুমদারের ছেলে মোঃ হুমায়ূন কবির মজুমদার ১৯৫৫ সালে জন্মগ্রহণ করেন। তিনি ছাত্র জীবন থেকেই রাজনীতিতে জড়িয়ে পড়েন। ১৯৬৮ সালে তিনি বাংলাদেশ ছাত্রলীগে যোগদান করেন এরপর ১৯৬৯ সালে গণঅভ্যুত্থানে অংশ গ্রহন করেন। ১৯৭০ সালে জাতীয় নির্বাচনে প্রচারণায় অংশ নেন।

১৯৭১ সালে বঙ্গবন্ধুর আহবানে মুক্তিযুদ্ধে বি,এল,এফ (মজিব বাহিনী) সংগঠনের মাধ্যমে অংশ গ্রহণ করেণ। ১৯৭৫ সালে তৎকালীন হাজীগঞ্জ থানা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পদকের দায়িত্ব পালন করেন। ১৯৯২ সালে চাঁদপুর জেলা আওয়ামীলীগের কার্যকরী কমিটির সদস্য পদে নিযুক্ত হন। ১৯৯৭ সালে শাহরাস্তি উপজেলা আওয়ামীলীগের আহবায়ক নির্বাচিত হন। ২০০৫ সালে চাঁদপুর জেলা আওয়ামীলীগের উপদেষ্টা পদে নিযুক্ত হন।

১৯৮৮ সালে ইউপি নির্বাচনে বৃহত্তর টামটা ইউনিয়নের চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়ে এ পদে ২০১১ সাল পর্যন্ত দায়িত্ব পালন করেন। ২০১১ সালে টামটা ইউনিয়ন বিভক্ত হওয়ার পর তিনি টামটা উত্তর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান পদে নির্বাচিত হন। বর্তমানে তিনি চাঁদপুর জেলা পরিষদের সদস্য ও চাঁদপুর জেলা আওয়ামীলীগের কার্যকরী কমিটির সদস্য। এ ছাড়া তিনি বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানসহ সামাজিক সংগঠনে দায়িত্ব পালন করেছেন।
এমএমএ/