নুসরাত হত্যা: দুই আসামির স্বীকারোক্তি

ফেনীর সোনাগাজীর মাদরাসা ছাত্রী নুসরাত জাহান রাফিকে আগুনে পুড়িয়ে হত্যার দায় স্বীকার করেছেন মামলার আসামি নুর উদ্দিন ও শাহাদাত হোসেন।

রোববার বিকেল ৩টায় শুরু হওয়া স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দিতে তারা এই দায় স্বীকার করেন। আদালতে ওই দুই আসামি প্রায় ১০ ঘণ্টা জিজ্ঞাসাবাদে তারা এই স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দেন।

জবানবন্দিতে তারা খুনের পরিকল্পনা, হত্যা মিশন ও এ সংক্রান্ত বিভিন্ন তথ্য আদালতকে জানিয়েছেন।

পিবিআই স্পেশাল ব্রাঞ্চের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার তাহেরুল হক সোহান ব্রিফ করে জানান, দুই আসামি জবানবন্দি দিয়েছেন। তারা জানিয়েছেন কারাগারে থাকা অধ্যক্ষ সিরাজ উদদৌলা নুসরাতকে খুন করার নির্দেশ দেন। অধ্যক্ষের নির্দেশ পাওয়ার পর নুসরাতকে আগুন ধরিয়ে পুড়িয়ে মারার সিদ্ধান্ত হয়।

বিকেল ৩টা থেকে রাত সাড়ে ৯টা পর্যন্ত জবানবন্দি দেন আসামি নুর উদ্দিন। এরপর জবানবন্দি দেন আরেক আসামি শাহাদাত হোসেন। তার জবানবন্দি চলে রাত পৌনে ১টা পর্যন্ত। ফেনীর জ্যেষ্ঠ বিচারিক হাকিম জাকির হোসাইন দুই আসামির জবানবন্দি রেকর্ড করেন।
নাবা/সেন্ট্রাল ডেস্ক/কেএইচ/