বিজিবি’র সব ইউনিটে মহান স্বাধীনতা ও জাতীয় দিবস উদযাপিত

বর্ডার গার্ড বাংলাদেশ (বিজিবি) প্রতি বছরের ন্যায় এবারও বিপুল উৎসাহ, উদ্দীপনা ও যথাযোগ্য মর্যাদায় মহান স্বাধীনতা ও জাতীয় দিবস উদযাপন করেছে। মহান স্বাধীনতা ও জাতীয় দিবসের কর্মসূচী অনুযায়ী সূর্যোদয়ের সময় সাভার জাতীয় স্মৃতিসৌধে রাষ্ট্রপ্রতি ও প্রধানমন্ত্রী কর্তৃক পুষ্পস্তবক অর্পণ অনুষ্ঠানে উপস্থিত থেকে বিজিবি মহাপরিচালক মেজর জেনারেল মো: সাফিনুল ইসলাম বীর শহীদদের প্রতি শ্রদ্ধা জানান।

সকাল ৬টা ২০ মিনিটে বিজিবি’র ইউনিটসমূহে জাতীয় পতাকা উত্তোলন করা হয়। সকাল ৭ টা ১৫ মিনিটে বিজিবি মহাপরিচালক ঢাকায় কর্মরত বিজিবি’র সকল অফিসার, বিজিবিতে কর্মরত সকল মুক্তিযোদ্ধা, জুনিয়র কর্মকর্তা এবং অন্যান্য পদবীর সৈনিকবৃন্দের অংশগ্রহণে পিলখানাস্থ স্মৃতিসৌধ ‘সীমান্ত গৌরব’- এর বেদিতে পুষ্পস্তবক অর্পণ করে বীর শহীদের প্রতি শ্রদ্ধা জানান। এ সময় বিজিবি’র একটি চৌকস দল ‘গার্ড অব অনার’ প্রদান করে।

দিবসের অন্যান্য কর্মসূচীর মধ্যে ফজরের নামাজের পর পিলখানাস্থ কেন্দ্রীয় জামে মসজিদসহ বিজিবি’র সকল ইউনিট মসজিদে জাতির শান্তি ও সমৃদ্ধি, মুক্তিযুদ্ধের শহীদদের আত্মার শান্তি এবং বিজিবি’র উত্তরোত্তর অগ্রগতি কামনা করে বিশেষ মোনাজাত করা হয়।

দুপুরে বিজিবি হাসপাতালের রোগীদের মাঝে উন্নত মানের খাবার পরিবেশন করা হয়। বিজিবি’র অডিটরিয়ামসমূহে বিজিবি সদস্য ও তাদের পরিবারবর্গ এবং বিজিবি স্কুল ও কলেজের ছাত্র-ছাত্রীদের জন্য মুক্তিযুদ্ধ ভিত্তিক চলচ্চিত্র প্রদর্শন, বিজিবি’র সকল ইউনিটে ‘‘বিজয়ী বাংলা তুমি সর্বত্র সগৌরবে’’ শীর্ষক রচনা প্রতিযোগিতার আয়োজন এবং সন্ধ্যার পর পিলখানাস্থ গুরুত্বপূর্ণ অফিস ভবন ও গেইটসমূহে আলোকসজ্জা করা হয়।

নাবা/ডেস্ক/এনএম