বাগেরহাটে মাত্র দু’ঘন্টার ব্যবধানে দু’বোনের মর্মান্তিক মৃত্যু

বাগেরহাটের শরণখোলা উপজেলায় মাত্র দু’ঘন্টার ব্যবধানে আপন দু’বোনের মর্মান্তিক মৃত্যু হয়েছে। এর মধ্যে এক বোন স্বামীর নির্যাতনে, অপরজন বিদ্যুৎস্পৃষ্ট হয়ে মারা গেছে।
আজ রোববার সকালে উপজেলার উত্তর কদমতলা গ্রামে এ ঘটনা ঘটেছে ।
শরণখোলা উপজেলার উত্তর কদমতলা গ্রামের আলম খানের চতুর্থ মেয়ে মেঘনার (২০)  এক বছর আগে বিয়ে হয় একই উপজেলার খোন্তাকাটা গ্রামের সেলিম তালুকদারের। সম্প্রতি যৌতুকের দাবীতে নির্যাতন সঙ্গে করলে গুরুতরভাবে আহত হন মেঘনা। পরে আশংকাজনক অবস্থায় মেঘনাকে খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেয়া হয়। তার অবস্থার অবনতি হলে মেঘনাকে রোববার ভোরে বাড়ি নিয়ে আসার পরপরই ভোর ৬টার দিকে সে মারা যায়।
এসময় বাড়িতে থাকা মেঘনার ছোট বোন ৬ষ্ঠ শ্রেণীর ছাত্রী তামান্না (১২) সকাল ৮টার দিকে বৈদ্যুতিক পাখার সংযোগ দিতে গেলে সে বিদ্যুৎস্পৃষ্ট হয়ে ঘটনাস্থলেই সেও মারা যায়। মাত্র দু’ঘন্টার ব্যবধানে দু’বোনের মৃত্যুর ঘটনায় ওই পরিবারে চলছে এখন শোকের মাতম। 
শরণখোলা থানা ওসি (তদন্ত) মফিজুর রহমান জানান, খবর পেয়ে শরণখোলা থানা পুলিশের একটি টিম ঘটনাস্থলে গিয়ে মেঘনার মৃতদেহ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য লাশ বাগেরহাট হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে। পরিবারের আবেদনের প্রেক্ষিতে প্রশাসনের অনুমতি স্বাপেক্ষে মেঘনার ছোট বোন তামান্নার লাশ ময়না তদন্ত ছাড়াই বিকেলে পারিবারিক কবরস্থানে দাফন করা হয়েছে।
নাবা/ডেস্ক/ওমর