নির্বাচনে প্রার্থী হওয়ায় আমার বিরুদ্ধে অপপ্রচার চালানো হচ্ছে: তওফিকুল ইসলাম

মতলব :  আসন্ন মতলব দক্ষিণ উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদপ্রার্থী হওয়ায় একটি মহল আমার বিরুদ্ধে মিথ্যা ও বানোয়াট তথ্য দিয়ে মতলববাসীকে বিভ্রান্তি করছে। উপজেলা নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে বাংলাদেশ আওয়ামীলীগ থেকে মনোনয়ন চাওয়ায় অপর একটি পক্ষ দলীয় নেতা-কর্মী ও মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনার কাছে আমার ব্যক্তি ও রাজনৈতিক ইমেজ ক্ষুন্ন করার জন্য একে পর এক যড়যন্ত্র চালিয়ে যাচ্ছে বলে জানান চেয়ারম্যান প্রার্থী তওফিকুল ইসলাম দেওয়ান।

যড়যন্ত্র নিয়ে তিনি বলেন, তারই ধারাবাহিকতায় গত ১৮ ফেব্রুয়ারি মরহুম খবির প্রধানের স্ত্রী মিসেস ফাতেমা খবির ওই বিশেষ মহলের প্ররোচনায় সংবাদ সম্মেলন করে আমার বিরুদ্বে মিথ্যা ও বিভ্রান্তমূলক তথ্য উপস্থাপন করে। যা চাঁদপুর স্থানীয় বেশ কয়েকটি পত্রিকায় ১৯ ফেব্রুয়ারি সংখ্যায় প্রকাশিত হয়। তওফিকুল ইসলাম জোর দাবী করে বলেন, আমি সাবেক এমপি এয়ার ভাইস মার্শাল এম রফিকুল ইসলামের ছোট ভাই ও উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে প্রার্থী হওয়ায় মতলবের সাধারণ মানুষ যে ভাবে গ্রহণ করেছে তা দেখে ওই কু-চক্রী মহল ঈর্ষানিত্ব।

যার ফলে তারা আমার বিরুদ্ধে মতলববাসী এবং আওয়ামী দলের হাই কমান্ডের কাছে বিভ্রান্তি মূলক তথ্য পরিবেশন করার জন্য উঠে পড়ে লেগেছে। তিনি আরো বলেন, খবির হত্যাকান্ডে যারা জড়িত তাদের বিচার আদালতে চলমান। বিচার কার্যে প্রভাব বিস্তার ক্ষমতা কারো নেই।

আইনের গতিতে খবির হত্যার বিচার হবেই। কিন্তু তাই বলে আমাকে জড়িয়ে যে মিথ্যা তথ্য খবিরের স্ত্রী উপস্থাপন করেছে তা অত্যন্ত দুঃখজনক। আমি উক্ত পপ্রকাশিত সংবাদের বিরুদ্বে তীব্র ক্ষোভ ও প্রতিবাদ জানাচ্ছি।

নাবা/এমএমএ/