ধর্ষকের সর্বোচ্চ সাজা মৃত্যুদন্ডের দাবি ঢাবি শিক্ষার্থীদের

ধর্ষকের সর্বোচ্চ সাজা মৃত্যুদণ্ড ও ত্রিশ দিনের মধ্যে বিচার শেষ করার আইনি বাধ্যবাধকতা তৈরির দাবি জানিয়ে রাষ্ট্রপতি ও প্রধানমন্ত্রীর কাছে স্মারকলিপি দিয়েছে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা।

আজ বৃহস্পতিবার বিকেলে বিশ্ববিদ্যালয়ের রাজু ভাস্কর্যের সামনে মাবনবন্ধন থেকে যৌন সহিংসতার বিরুদ্ধে সবাইকে সোচ্চার হওয়ার আহবান জানান এসব বিক্ষুব্ধ শিক্ষার্থীরা।

মহিলা পরিষদের তথ্য অনুযায়ী, চলতি বছরের প্রথম ছয় মাসেই সারাদেশে ধর্ষণের শিকার হয়েছেন ৭৩১ নারী ও শিশু। এর মধ্যে ২৬ জনকে হত্যা করা হয়েছে।

সম্প্রতি রাজধানীর ওয়ারিতে সাত বছরের শিশু সায়মাকে ধর্ষণের পর হত্যার ঘটনায় নতুন করে আলোচনায় এসেছে নারী ও শিশুর নিরাপত্তা ইস্যু। রাজপথে নেমে প্রতিবাদে শামিল হয়েছে অনেকে।

রাজু ভাস্কর্যের সামনে মানববন্ধন থেকে যৌন সহিংসতার বিরুদ্ধে একসঙ্গে আওয়াজ তোলেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের বর্তমান ও প্রাক্তন শিক্ষার্থীরা। টানা তৃতীয় দিনের এই কর্মসূচিতে আতঙ্ক আর নিরাপত্তাহীনতার কথা তুলে ধরেন অনেকে।

ধর্ষকের সর্বোচ্চ সাজা মৃত্যুদণ্ড চেয়ে রাষ্ট্রপতি ও প্রধানমন্ত্রীর কাছে স্মারকলিপি দিয়ে শিক্ষার্থীদের দাবি, এ ধরনের মামলার বিচার শেষ করতে হবে একমাসের মধ্যেই।

সংসদের চলতি অধিবেশনেই নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইন সংশোধন করে ধর্ষণের সর্বোচ্চ সাজা মৃত্যুদণ্ড যুক্ত করার দাবি বিক্ষুব্ধদের।

 

নাবা/ডেস্ক/হাফিজ