তরুনদের উদ্যোগে চাঁদপুর শহরে হাতপাখার পক্ষে গণসংযোগ ও মিছিল

সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট। নাগরিক বার্তা.কম
চাঁদপুর: তরুনদের উদ্যোগে রবিবার (২৩ ডিসেম্বর) বিকাল ৩ টায় চাঁদপুর শহরে হাতপাখার পক্ষে ব্যাপক গণসংযোগ ও মিছিল অনুষ্ঠিত হয়। আগামী একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ এর আমীর পীরসাহেব চরমোনাই মনোনীত চাঁদপুর-৩ আসনে সংসদ সদস্য প্রার্থী শেখ মুহাঃ জয়নাল আবদিন এর পক্ষে শত শত তরুণদের হাতপাখার ব্যাপক গণসংযোগ ও মিছিল অনুষ্ঠিত হয়। রবিবার শহরে হঠাৎ করেই বিপনীবাগ থেকে শুরু করে পুরো শহরে শত শত তরুণ হাতপাখা নিয়ে মিছিল করেন। যা জনমনে ব্যাপক সাড়া পরেছে।

ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ এর মিছিলে সাধারণত দাড়ি টুপি পরিহিত লোক বেশি থাকলেও গতকাল ছিল ব্যতিক্রমধর্মী। মুষ্টিময় কয়েকজন ছাড়া শত শত যুবকরাই দাড়ি টুপি ছাড়া কলেজ বিশ্ববিদ্যলয়ের শিক্ষার্থীসহ তরুন ভোটাররা মিছিলে নেমেছে যা শহরে আলোচনায় চলে এসেছে গতকালকের হাতপাখার মিছিল নিয়ে।

মিছিল শেষে বিপনীবাগ ইসলামী আন্দোলনের কার্যালয় সম্মুখে প্রধান অতিথির বক্তব্যে ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ মনোনীত চাঁদপুর-৩ আসনের প্রার্থী জননেতা শেখ মুহাঃ জয়নাল আবদিন বলেন, হাতপাখার বিজয় হলে দুর্নীতি, দুঃশাসন, সন্ত্রাস, মাদকমুক্ত, উন্নত ও কল্যাণ রাষ্ট্র গঠন করা হবে। আগামী একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে দলের আমীর পীরসাহেব চরমোনাই ইশতেহার ঘোষণা করেছেন তা হলো খাদ্যমূল্য ২০ শতাংশ কমানো, জ্বালানি তেল ও গ্যাস-বিদ্যুতে দাম ৩০ শতাংশ কমানো; জমির খাজনা, সব ধরনের টোল এবং হোল্ডিং ট্যাক্স ৩০ শতাংশ কমানো; সেচ ও বীজ অর্ধেক মূল্যে, শ্রমিকদের জীবনমান উন্নয়নে বেতন দ্বিগুণ করা; চিকিৎসা ব্যয় ৫০ শতাংশ কমানো; পরিবহন ভাড়া ৩০ শতাংশ কমানো; সব শিক্ষা প্রতিষ্ঠানকে জাতীয়করণ; আমদানি ও রপ্তানি শুল্ক ৩০ শতাংশ কমানো; সব মসজিদের ইমাম-মোয়াজ্জিন ও খাদেমকে সম্মানজনক ভাতা প্রদান, সব মন্দির-গির্জার প্রধান ও সেবকদের সম্মানজনক ভাতা প্রদান করা হবে। আমরা নির্বাচিত হলে এগুলো বাস্তবায়ন করা হবে। সকলের সমান সুযোগ থাকবে, চাঁদপুরের সকল শ্রেণীর মানুষ অধিকার ফিরে পাবে।

এসময় উপস্থিত ছিলেন ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ চাঁদপুর জেলা জয়েন্ট সেক্রেটারি কে.এম ইয়াসিন রাশেদসানী, সাবেক সাংগঠনিক সম্পাদক মাওলানা আনোয়ার আল নোমান, ইসলামী শাসনতন্ত্র ছাত্র আন্দোলন জেলা সহ-সভাপতি মুহাঃ মহসিন হোসেন, সাধারণ সম্পাদক মুহাঃ নেছার উদ্দিন, সাবেক ছাত্র নেতা মুহাঃ শহিদুল ইসলাম, ইসলামী যুব আন্দোলন সদর উপজেলার প্রচার সম্পাদক মুহাঃ মনির হোসেন রাজনসহ শহর শাখার নেতৃবৃন্দ।
এমএমএ/