এসএমএস নিয়ে তাসকিনের বক্তব্য

বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড (বিসিবি) ইতিমধ্যে আসছে বিশ্বকাপের জন্য ১৫ সদস্যের চূড়ান্ত দল ঘোষণা করেছে। দলে স্থান পাননি দেশসেরা স্পিডস্টার তাসকিন আহমেদ।

স্বাভাবিকভাবেই মনোক্ষুণ্ন তাসকিন। ক্যামেরার সামনে কান্নাও লুকাতে পারেননি তিনি। বিসিবি প্রেসিডেন্ট ও নির্বাচকদের এসএমএস দিয়ে লবি করার অপবাদ এসে পড়েছে তার ঘাড়ে। এ যেনো মড়ার উপর খাঁড়ার ঘা। সেই অভিযোগ উড়িয়ে দিয়েছেন তাসকিন।

ভক্তদের উদ্দেশ্যে তাসকিন বলেন, আমি এখন স্বাভাবিক আছি। অনলাইন পোর্টালগুলো অনেক সময় ভুল করতে পারে। সেগুলোতে কান দেবেন না। আমি আরো ভালো করার চেষ্টা করছি। প্রাকটিস করছি। যেসব বিষয় আমার নিয়ন্ত্রণে নেই, সেসব নিয়ে আমি চিন্তিত না।

তিনি বলেন, আমার বিরুদ্ধে আনা অভিযোগটি সম্পূর্ণ মিথ্যা। আমাকে বিব্রত করার জন্যই এসব গুজব ছড়ানো হচ্ছে।

তিনি জানান, মিনহাজুল আবেদীন নান্নুই তাকে খুদেবার্তা পাঠিয়েছিলেন। তাতে প্রধান নির্বাচক লিখেছিলেন- নট টু ওরি, লং ওয়ে টু গো’। প্রত্যুত্তরে ডানহাতি পেসার লেখেন- থ্যাংক ইউ।

নির্বাচকদের বার্তা দেয়া নিয়ে তাসকিন বলেন, এ খবর টোটালি গুজব। আমি বুঝলাম না, কীভাবে এলো এটি। সংবাদমাধ্যমের উচিত সহযোগিতা করা। এ রকম উল্টাপাল্টা ভুল খবর ছড়ানো ঠিক নয়।

তিনি বলেন, আমার এখন লক্ষ্য নিজেকে আরো ফিট করে তোলা। আরো ভালো খেলা। আমি এসব নিয়ে বেশি চিন্তিত নই। তবে এসব ঠিক নয়। এগুলো খেলোয়াড়দের জন্য বিব্রতকর। আমি স্বপ্নের বিশ্বকাপ স্কোয়াডে সুযোগ পেলাম না। এর মধ্যে এমন বিব্রতকর খবর দুঃখজনক। তিলকে তাল বানানো ঠিক নয়।
নাবা/সেন্ট্রাল ডেস্ক/কেএইচ/