ইনডেক্সধারী শিক্ষকদের আবেদনের সুযোগ সংক্রান্ত হাইকোর্টের রুল

ইনডেক্সধারী শিক্ষকদের বেসরকারি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে নিয়োগ প্রক্রিয়ায় বিভাগীয় প্রার্থী হিসেবে আবেদনের সুযোগ না দেয়াকে কেন অবৈধ ঘোষণা করা হবে না মর্মে রুল জারি করেছেন হাইকোর্ট।

সোমবার (১১ ফেব্রয়ারি) বিচারপতি মইনুল ইসলাম চৌধুরী ও বিচারপতি মোঃ আশরাফুল কামালের সমন্বয়ে গঠিত হাইকোর্টের একটি বেঞ্চ এই রুল জারি করেন।

ইনডেক্সধারী শিক্ষকদের পক্ষের আইনজীবী ব্যারিস্টার নূর মোহাম্মদ আজমী  বলেন, বেসরকারি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে সম্প্রতি প্রায় ৪০ হাজার শূন্য পদে শিক্ষক নিয়োগের সুপারিশ করেছে এনটিআরসিএ। কিন্তু নিয়োগ সুপারিশ পেতে পূর্বে বেসরকারি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে নিয়োগপ্রাপ্ত ইনডেক্সধারী নিবন্ধিক ও অনিবন্ধিত শিক্ষকদের আবেদন বিভাগীয় প্রার্থী হিসেবে বিবেচনা করা হয়নি। যদিও ২০১৮ খ্রিস্টাব্দে জারি হওয়া এমপিও নীতিমালা ও জনবল কাঠামোতে ইনডেক্সধারী শিক্ষকদের বিভাগীয় প্রার্থী হিসেবে বিবেচনা করার কথা বলা হয়েছে।

তিনি আরও জানান, এ প্রেক্ষিতে রিট করা হলে ইনডেক্সধারী শিক্ষকদের বেসরকারি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে নিয়োগ প্রক্রিয়ায় বিভাগীয় প্রার্থী হিসেবে আবেদনের সুযোগ না দেয়াকে কেন অবৈধ ঘোষণা করা হবে না মর্মে রুল জারি করেছেন হাইকোর্ট। বেসরকারি শিক্ষক নিবন্ধন ও প্রত্যয়ন কর্তৃপক্ষের চেয়ারম্যানসহ বিবাদি ছয়জনকে চার সপ্তাহের ভেতর রুলের জবাব দিতে বলেছে হাইকোর্ট।

উল্লেখ্য, বেসরকারি স্কুল ও কলেজের এমপিও নীতিমালা-২০১৮ এর ১২ ধারা অনুযায়ী ইনডেক্সধারী শিক্ষকরা বিভাগীয় প্রার্থী হিসেবে প্রতিষ্ঠান পরিবর্তনের সুযোগ পাবেন। কিন্তু এনটিআরসিএ শুধুমাত্র নিবন্ধিতদের সুযোগ দিয়েছে। এনটিআরসিএ ইনডেক্সধারীদের আবেদন বিভাগীয় প্রার্থী হিসেবে বিবেচনা না করায় ৭১ জন শিক্ষক সুপ্রিমকোর্টের হাইকোর্ট ডিভিশনে রিট পিটিশন দায়ের করেছিলেন।

নাবা/এমএমএ/