অস্ট্রেলিয়াকে উড়িয়ে বিশ্বকাপের ফাইনালে ইংল্যান্ড

একাই লড়াই করে গেলেন স্টিভেন স্মিথ। সতীর্থদের আশা-যাওয়ার মিছিলে এক প্রান্ত আগলে রেখেছেন। ইংলিশদের গতি ঝড় পারেনি স্পর্শ করতে। কিন্তু তাতেও জিতাতে পারলেন না দলকে। ছোট রানের লক্ষ্য সহজেই টপকে গেল স্বাগতিক ইংল্যান্ড। আর অস্ট্রেলিয়াকে বিদায় করে দ্বিতীয় দল হিসেবে জায়গা করে নিল বিশ্বকাপের ফাইনাল।

এজবাস্টনে আইসিসি ক্রিকেট বিশ্বকাপের দ্বিতীয় সেমিফাইনালে আজ বৃহস্পতিবার অস্ট্রেলিয়াকে ৮ উইকেটে ১০৭ বল হাতে রেখে হারায় ইংল্যান্ড। পুরো টুর্নামেন্টে দুর্দান্ত খেলেও সেমিফাইনালের ব্যাটিং ব্যর্থতায় বিদায় নিতে হলো গেলবারের বিশ্ববারের বিশ্বচ্যাম্পিয়নরা।

এদিন স্মিথের ৮৫ রানের অসাধারণ ইনিংসের উপর ভর করে ৪৯ ওভারে ২২৩ রান সংগ্রহ করে অস্ট্রেলিয়া। টস জিতে আগে ব্যাটিংয়ে নেমেই বিপদে পড়ে অজিরা।  মাত্র ১৪ রান তুলতেই ৩ উইকেট হারিয়ে ফেলেছে তাঁরা। ইংলিশ পেসে রীতিমত ব্যাটিং বিপর্যয়ে অ্যারন ফিঞ্চের দল।এরপর স্মিথ-ক্যারির ব্যাটে ঘুরে দাঁড়ায় তাঁরা। তবে বেশিক্ষণ আগাতে পারেনি এই জুটি।

৪৬ রান তুলে বিদায় নেন ক্যারি। এরপর ফিরে যান স্টোনিসও। কিন্তু উইকেটে টিকে ছিলেন স্মিথ। তুলে নিয়েছেন বিশ্বকাপে আরেকটি হাফসেঞ্চুরি। খেলে গেছেন আস্থার সাথে। যার কারণে সেমিফাইনালের মতো গুরুত্বপূর্ণ ম্যাচে মোটামুটি মানের লড়াইয়ের পুঁজি পেয়েছে অস্ট্রেলিয়া।

ইংলিশ বোলারদের মধ্যে ক্রিস ওকস এবং আদিল রশিদ নেন ৩টি করে উইকেট। জোফরা আর্চার নেন ২ উইকেট। ১টি নেন মার্ক উড।

কিন্তু ইংল্যান্ডের শক্ত ব্যাটিং লাইনাপের কাছে পেরে উঠেনি বিশ্বচ্যাম্পিয়নরা। জবাবে ব্যাট করতে নেমে মাত্র ৩১.১ ওভারেই জয় তুলে নেয় ইংল্যান্ড। দলের হয়ে সর্বোচ্চ রান করেন জেসন রয়। ৪৯ রান করেন জো রুট। অধিনায়ক মরগান করেন ৪৫ রান।

(নাবা/১১ জুলাই/এইচএ)