তিন কোটি টাকার ধান বীজ চোর চার উপপরিচালক!

তিন কোটি টাকার ধান বীজ চোর চার উপপরিচালক!
ঝিনাইদহের মহেশপুরে অবস্থিত এশিয়ার দ্বিতীয় বৃহত্তম দত্তনগর কৃষি বীজ উৎপাদন খামারের চার উপপরিচালককে সাময়িক বরখাস্ত করা হয়েছে। 

বরখাস্ত হওয়া কর্মকর্তারা হলেন, দত্তনগর কৃষি খামারের গোকুলনগর ইউনিটের উপপরিচালক তপন কুমার সাহা, করিঞ্চা খামারের উপপরিচালক ইন্দ্রজিৎ চন্দ্র শীল ও পাথিলা কৃষি খামারের উপপরিচালক আক্তারুজ্জামান তালুকদার এবং যশোর বীজ প্রক্রিয়াজাত কেন্দ্রের উপপরিচালক মো. আমিন উল্যাহ। 

এই কর্মকর্তারা প্রায় ৩ কোটি টাকা মূল্যের ১২৯ মেট্রিক টন ধান বীজ খামারে মজুদ করার তথ্য গোপন করেছেন এবং সেগুলো আত্মসাৎ করেছেন। অভিযোগ তদন্তে এসব বিষয় প্রমাণিত হয়েছে।

বাংলাদেশ কৃষি উন্নয়ন করপোরেশন (বিএডিসি) সচিব আব্দুল লতিফ মোল্লা স্বাক্ষরিত এক চিঠিতে গত সোমবার এ তথ্য জানানো হয়।

বরখাস্ত হওয়া কর্মকর্তাদের কাছে পাঠানো পৃথক চিঠি সূত্রে জানা যায়, বেআইনিভাবে দত্তনগর, গোকুল নগর, পাথিলা ও করিঞ্চা বীজ উৎপাদন খামারে ২০১৮-১৯ উৎপাদন বর্ষে অতিরিক্ত ১২৯.২২ মেট্রিক টন এসএল-৮এইচ হাইব্রিড জাতের ধান বীজ গুদামে মজুদ করা হয়। বিপুল টাকা হাতিয়ে নেওয়ার জন্য এ মজুদের তথ্য গোপন রাখা হয়। এমনকি প্রক্রিয়াজাত বীজ গুদামে রাখার চালানের কোনো তথ্য প্রমাণও স্ব-স্ব খামারের উপপরিচালকের দপ্তরে রাখা হয়নি।

বিষয়টি বিএডিসির উপরমহল জানতে পারলে একটি তদন্ত কমিটি গঠন করেন। তদন্তে দুর্নীতির প্রমাণ মিলেছে। এরই প্রেক্ষিতে গত সোমবার তাদের বরখাস্ত করা হয়েছে।

নাবা/ডেস্ক/এইচ/

রিলেটেড নিউজঃ

    মতামত দিন